Header Ads


moving image by marquee html code

বাংলাদেশ-থাইল্যান্ড ৭ম যৌথ কমিশনের বৈঠক বুধবার

বাংলাদেশ ও থাইল্যান্ডের মধ্যে ৭ম যৌথ কমিশনের বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে বুধবার। বৈঠকে যোগ দিতে মঙ্গলবার ঢাকা পৌঁছানোর কথা রয়েছে থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডন প্রামোদউইনেই।
থাইল্যান্ডে বাংলাদেশ দূতাবাসের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।
বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বাংলাদেশ ও থাইল্যান্ডের মধ্যে সপ্তম পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। আগামী ৫ থেকে ৭ জুলাই ঢাকায় বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হবে। থাইল্যান্ডে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত সাইদা মুনা তাসনিম রোববার থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে আসন্ন বৈঠকের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন।
বৈঠকে থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রী ১৮ সদস্যের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেবেন। অন্যদিকে বাংলাদেশের হয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও সংস্থার প্রতিনিধিদের নিয়ে গঠিত একটি বড় দলের নেতৃত্ব দেবেন।
এতে জানানো হয়, থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে মুনা তাসনিম বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর শুভেচ্ছা বার্তা পৌঁছে দেন।
তিনি বলেন, অনুষ্ঠেয় বৈঠকের মাধ্যমে পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা দুই দেশের সম্পর্ক আরও পুনর্মূল্যায়ন ও শক্তিশালী করার পদক্ষেপ নেবেন। এর উত্তরে থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশের প্রশংসা করে বলেন, থাইল্যান্ড বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক আরও জোরদার করতে আগ্রহী।
৭ম যৌথ কমিশনের বৈঠকে বাংলাদেশ ও থাইল্যান্ডের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের বিস্তারিত নিয়ে আলোচনা করবেন। বৈঠক শেষে বৈঠকে ঐক্যমতে আসা বিষয়গুলোতে স্বাক্ষর করবেন তারা।
বাংলাদেশ সফরকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করবেন থাই পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডন প্রামোদউইনেই। এছাড়া জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধা জানাতে বঙ্গবন্ধু জাদুঘরে যাবেন তিনি।
উল্লেখ্য, দীর্ঘ দুই দশক পরে বাংলাদেশ ও থাইল্যান্ডের মধ্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে হচ্ছে। এর আগের বৈঠকটি হয়েছিল ১৯৯৮ সালে।

No comments

Thanks you for comment

Powered by Blogger.