Header Ads


moving image by marquee html code

সোনারগাঁয়ে রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সমাবেশ

মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর পৈশাচিক নারকীয় হত্যাযজ্ঞকে পুরো বিশ্ব যেভাবে ধিক্কার জানিয়ে যাচ্ছে তার সঙ্গে সোনারগাঁবাসী দল মত ধর্ম নির্বিশেষে একাত্মতা ঘোষণা করেন। এরই ধারাবাহিকতায় আজ ২৩ সেপ্টম্বর শনিবার সকাল ১০-১২টা পর্যন্ত মোগরাপাড়া চৌরাস্তায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিলে হাজার হাজার মানুষের সমাগম ঘটিয়ে নজিরবিহীন দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। রাজনীতিমুক্ত জোরালো প্রতিবাদ এবং মানবতার পক্ষের স্লোগান ও বিক্ষোভে মহাসড়কের পরিবেশ ভারাক্রান্ত হয়ে উঠেছিলো।
সমাবেশে বক্তারা বলেন, মৃত্যু, কান্না, কষ্ট, লাশের গন্ধ, নাফ নদীতে লাশের বিচ্ছিন্ন মিছিল, রোহিঙ্গাদের হাহাকার, অসহায়ত্ব বিশ্বমানবতাকে পদদিলত করছে। জাতিসংঘের ভূমিকাকে করেছে প্রশ্নবিদ্ধ।
জাতিসংঘ, ইউরোপীয় পার্লামেন্ট এবং ওআইসি ছাড়াও বিভিন্ন দেশসহ আন্তর্জাতিক মিডিয়া সিএনএন ও বিবিসি এবং অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল মিয়ানমারের বিরুদ্ধে রাখাইনে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের ওপর অমানবিক নারকীয় ও বীভৎস হত্যাযজ্ঞের অকাট্য প্রমাণসহ জাতিগত নিধনের অভিযোগ এনেছে। সহিংসতা বন্ধের অনুরোধ জানিয়ে আসছে। কিন্তু বরাবরের মতো অং সান সু চি অস্বীকৃতি জানিয়েছেন। তার দেশের সামরিক কর্মকর্তারা নাকি সন্ত্রাস বন্ধের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। এই যদি হয় সন্ত্রাসী নির্মূলের কার্যক্রম তাহলে পুরো বিশ্ব কেন ক্ষোভ ঝাড়ছে?
‘জীব হত্যা মহাপাপ’ আর এই জীব হত্যাকেই মিয়ানমার সরকার সহজ স্বাভাবিক, নির্বিকারভাবে চালিয়ে আসছে।
সোনারগাঁ উপজেলার প্রতিটি মসজিদ ও মাদ্রাসার শিক্ষার্থী, ইমাম, মুয়াজ্জিন এবং এলাকার মুসল্লিরা নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলিমদের কল্যাণে মোনাজাত করেন। দুনিয়ার সকল মুসলমানদের জন্য আল্লাহ্ পাকের রহমত ও সাহায্য প্রার্থনার পর নিহতদের স্মরণে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে শোকরেলী এবং অমানবিক নির্যাতনের প্রতিবাদে খুনি সুচির কুশপুত্তলিকা দাহ করে।
প্রতিবাদ সভায় প্রত্যেক বক্তাই তাদের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করেন এবং সু চির নোবেল প্রত্যাহারের দাবি জানান। সকল বক্তার বক্তব্যে সামরিক বাহিনীর অমানবিক হত্যাসহ তাদের নারকীয় পৈশাচিকতার চিত্র ফুটে ওঠে।
‘রোহিঙ্গা মুসলমানদের গণহত্যার প্রতিবাদে সোনারগাওয়ে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, আল্লামা মহিউদ্দিন খান, হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় যুগ্ন মহাসচিব আল্লামা মুফতী ফয়জুল্লাহ, হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক মুফতী আলতাফ হোসাইন, নারায়ণগঞ্জ জেলা হেফাজতের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান ও সোনারগাঁয়ের স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

No comments

Thanks you for comment

Powered by Blogger.